1. doorbin24bd@gmail.com : admin2020 :
  2. reduanulhoque11@gmail.com : Reduanul Hoque : Reduanul Hoque
April 17, 2024, 9:57 pm
সংবাদ শিরোনাম :
ইরান-ইসরায়েল উত্তেজনা: যুদ্ধ পরিস্থিতি মোকাবিলায় আগাম প্রস্তুতির নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর রাতে যে এক ঘণ্টা বন্ধ থাকবে ইন্টারনেট পরিষেবা ৭১ বছর পর সূর্যের কাছে আসছে এই ধূমকেতু, দেখা যাবে বাংলাদেশ থেকেও ডেঙ্গু প্রতিরোধে মাসে ৫০ হাজার করে পাচ্ছেন কাউন্সিলররা বিচারপতিদের সমান সুযোগ-সুবিধা পাবেন নির্বাচন কমিশনাররা ইতিহাসগড়া সেঞ্চুরিতে বাটলারের অনন্য নজির  ‘ইন্টারনেট পাওয়া যায় না ঢাকার সরকারি মেডিকেলগুলোতে’ বুয়েট শিক্ষার্থী সানির মৃত্যু : তদন্ত প্রতিবেদন ১২ মে হঠাৎ সালমানের বাড়িতে মুখ্যমন্ত্রী শিন্ডে, কী নিয়ে কথা হল? নারায়ণগঞ্জে ভবন থেকে পড়ে চীনা নাগরিকের মৃত্যু

কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ধারবাহিকতা রক্ষার চ্যালেঞ্জ

  • প্রকাশিত : বুধবার, এপ্রিল ৬, ২০২২
  • 192 বার পঠিত

যশোর জেলার কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স আবারো দেশ সেরা হয়েছে। ‘স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাতীয় পুরস্কার-২০২০’ এই দুটি ক্যাটাগরিতে প্রথম ও তৃতীয় হওয়ার সাফল্য দেখিয়েছে এই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাতীয় পুরস্কার ক্যাটাগরিতে কমিউনিটি ক্লিনিক সার্ভিসেস ক্ষেত্রে দেশের মধ্যে প্রথম হয়েছে। এই অভিজ্ঞতা ও করনীয় বর্ননা করলেন, উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আলমগীর হোসেন।

দেশের মধ্যে ১০টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সকে কাজের মূল্যায়নে পুরস্কার দেয়া হয়। অন্যদিকে হাসপাতালে স্বাস্থ্য সেবাদানের ক্ষেত্রে দেশে তৃতীয় স্থানে রয়েছে এ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। এখানেও সারা দেশে ১০টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পুরস্কার পায়। সরকারি হাসপাতালটি টানা চতুর্থবারের মতো পুরস্কার পেয়েছে। এর আগে এ ক্যাটাগরিতে দুইবার দ্বিতীয় ও দুইবার তৃতীয় অবস্থানে ছিলো।

গত সপ্তাহে রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে স্বাস্থ্য অধিদফতর আয়োজিত ‘স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাতীয় পুরস্কার-২০২০’ প্রদান অনুষ্ঠানে এ ঘোষণা দেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। কেশবপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পক্ষে পুরস্কার নেন উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আলমগীর হোসেন। দুটি পুরস্কারের জন্য ক্রেস্ট ও সনদ দেয়া হয়।

পুরস্কার নিয়ে ফেরার পর নিজ কার্যালয়ে আলমগীর হোসেন জানান, এ পুরস্কার অর্জনের পেছনে কাজ করেছে সম্মিলিত প্রয়াস। কমিউনিটি হেলথ সার্ভিসের ক্ষেত্রে কমিউনিটি হেলথ সার্ভিস প্রোভাইডার এবং সুপারভাইজারদের ভূমিকা রয়েছে। আবার হাসপাতালে স্বাস্থ্য সেবাদানের ক্ষেত্রে হাসপাতালে বিভিন্ন সেকশনের কাজকে মূল্যায়ন করা হয়। আলমগীর হোসেন
আরো জানান যে ক্যাটাগরিতে তারা তৃতীয় হয়েছেন, সে ক্ষেত্রে ভবিষ্যতে আরো ভালো করে সেরা হওয়া এবং যেটিতে প্রথম হয়েছেন, সে ক্ষেত্রে সাফল্যের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখা ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ হবে। সব মিলিয়ে বলা যায়, এ পুরস্কার কেশবপুরবাসীর জন্য আশাতীত গৌরবের।

সংবাদটি শেয়ার করুন :
এ জাতীয় আরও খবর

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
© All rights reserved © 2017 doorbin24.Com
Theme Customized By Shakil IT Park